May 23, 2019
জয়ের পর নাম থেকে ‘চৌকিদার’ শব্দ ছেঁটে ফেললেন মোদি#হারের পর পদত্যাগ করছেন রাহুল #শেখ হাসিনার অভিনন্দনগান্ধী!#

আলোর পরশ নিউজ  লোকসভা নির্বাচনে টানা দ্বিতীয় বারের মতো বিপুল ম্যান্ডেট পাওয়ার পর নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে নামের আগে বসানো চৌকিদার উপসর্গটি ফেলে দিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।-ছবি এনডিটিভি অনলাইনের

তিনি বলেন, এটা তার অবিচ্ছেদ্য অংশ হয়ে থাকবে। এক টুইটে তিনি বলেন, এখন সময় এসেছে চৌকিদার স্পৃহা নতুন পর্যায়ে নিয়ে যাওয়া। কাজেই এই চেতনা সর্বদা জাগ্রত রেখে ভারতের অগ্রগতির জন্য তিনি কাজ করে যাবেন বলে জানিয়েছেন।

মোদি বলেন, টুইটারে আমার নাম থেকে চৌকিদার শব্দটি সরিয়ে দিয়েছি। আপনার সবাই একই কাজ করবেন বলে আমি আহ্বান জানাচ্ছি।

‘ভারতীয় জনগণ চৌকিদার হয়েছেন এবং দেশকে তারা ব্যাপক সেবা দিয়েছেন। বর্ণপ্রথা, সাম্প্রদায়িকতা, দুর্নীতি ও স্বজনপ্রীতির অশুভ প্রভাব থেকে ভারতের রক্ষাকবচের প্রতীক হচ্ছে চৌকিদার।’

‘আমিও চৌকিদার’ প্রচারের অংশ হিসেবে নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে নামের সঙ্গে চৌকিদার শব্দটি যোগ করে দিয়েছিলেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

বিজেপি প্রধান অমিত শাহ ও বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীরাও একই পথ অবলম্বন করে নামের আগে এই উপসর্গ যোগ করেছিলেন।

লজ্জাজনক হারের পর পদত্যাগ করছেন রাহুল গান্ধী!

লজ্জাজনক হারের পর পদত্যাগ করছেন রাহুল গান্ধী!
ছবি: এএফপি

ভারতের সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে লজ্জাজনক হারের পর দেশটির বিরোধী দল কংগ্রেসের সভাপতির পদ থেকে সরে দাঁড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছেন রাহুল গান্ধী।

কংগ্রেস সূত্রের বরাত দিয়ে ইন্ডিয়া টুডে জানিয়েছে, মা সোনিয়া গান্ধীসহ কংগ্রেসের সিনিয়র নেতাদের একটি গ্রুপের কাছে তিনি বলেছেন- নির্বাচনে হারের পুরো দায় স্বীকার করেছেন তিনি। কাজেই দলীয় প্রধানের পদ থেকে তিনি সরে দাঁড়াতে চাচ্ছেন।

তবে রাহুল গান্ধীর পদত্যাগের এই খবরকে উড়িয়ে দিলেন কংগ্রেসের মুখপাত্র রণদ্বীপ সিং।

সূত্র জানায়, রাহুল গান্ধীর প্রস্তাব নিয়ে আলোচনা করতে সপ্তাহখানেকের মধ্যেই বৈঠকে বসার আভাস দিয়েছে কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি।

এদিকে ভারতের লোকসভা নির্বাচনে নিজ আসনে বিজেপি প্রার্থী শ্রীমতি ইরানির কাছে হার স্বীকার করেছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। বিজয়ী প্রার্থীকে আমেথিকে ভালোবাসার সঙ্গে দেখভাল করার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

গত চার দশক ধরে এই আসনটিতে কংগ্রেস বিজয়ী হয়ে আসছিল। তবে কেরালার ওয়েনাড থেকে বিজয়ী হয়েছেন গান্ধী পরিবারের এই উত্তরসূরি।

নরেন্দ্র মোদীকে শেখ হাসিনার অভিনন্দন

ভারতে সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে জিতে টানা দ্বিতীয়বার সরকার গঠনের সুযোগ পাওয়ায় দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে অভিনন্দন জানিয়েছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বৃহস্পতিবার (২৩ মে) বিকেল এক বার্তায় তিনি এ অভিনন্দন জানান। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের রবীশ কুমার বিষয়টি সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন।

রবীশ বলেন, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নরেন্দ্র মোদীকে তার নেতৃত্বে বিজয় অর্জনের জন্য অভিনন্দন বার্তা পাঠিয়েছেন। তিনি এতে ভারতীয় জনগণের সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করেন।

প্রসঙ্গত, ভারতের ১৭তম লোকসভা নির্বাচনে আবারও বিজেপি’র সম্ভাব্য জয়ে পথে নরেন্দ্র মোদি। বৃহস্পতিবার (২৩ মে) ভোট গণনার শুরু থেকেই এগিয়ে রয়েছে বিজেপি। বিপুল ব্যবধানে দলটির জয় এখন প্রায় নিশ্চিত। এদিকে, ইতোমধ্যে জয়োৎসবের আয়োজন শুরু করে দিয়েছে বিজেপি। সন্ধ্যায় নরেন্দ্র মোদিকে সংবর্ধনা জানানোর কথা রয়েছে।

এর আগে স্থানীয় সময় সকাল ৮টায় শুরু হয় ভোট গণনা। ১৭তম লোকসভা নির্বাচনে ৬৭০টি দলের ৮ হাজার প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। ৯০ কোটির মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৬০ কোটি ৩ লাখ ভোটার। ১১ এপ্রিল ভোট শুরু হয়ে শেষ হয় ১৯ মে। ৫৪৩টি আসনের মধ্যে ৫৪২টি আসনে নির্বাচন হয়েছে। সরকার গঠনের জন্য প্রয়োজন ২৭২ আসন।

একই রকম সংবাদ


আলোর পরশ ( সম্পাদক ও প্রকাশক কর্তৃক প্রকািশত) ৩০২/১-এ-নতুন পল্টন ঢাকা ১০০০. http://alorparosh.com/

Copyright © 2017 alorparosh.com. All rights reserved.